[google-translator]
Banner Image

Welcome Message

অধ্যক্ষের বাণী

MMPI

বাগেরহাট সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজ বাংলাদেশের কারিগরি শিক্ষাঙ্গনে একটি সুপরিচিত এবং সর্বজন স্বীকৃত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। মানব সম্পদ উন্নয়ণ এবং দারিদ্র বিমোচনের জন্য কারিগরি শিক্ষার অবদান অনস্বীকার্য। এতদাঞ্চলের বিশাল জনগোষ্ঠিকে কারিগরি শিক্ষার মাধ্যমে দক্ষ মানব সম্পদে পরিণত করাই এ প্রতিষ্ঠানের দায়িত্ব। বিশ্বায়নের সাথে তাল মিলিয়ে একবিংশ শতাব্দীর চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় এ প্রতিষ্ঠান যুগোপযোগী ও লাগসই কারিগরি শিক্ষা প্রদান করে আসছে।

ছাত্রজীবনই ভবিষ্যৎ জীবনে সুনাগরিক হিসেবে গড়ে উঠার উপযুক্ত স্থান হচ্ছে কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। সাধারণ ও কারিগরি শিক্ষার সমন্বয়ে প্রণীত এসএসসি (ভোকেশনাল) ও এইচএসসি (ভোকেশনাল) শিক্ষাক্রম সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের যথাক্রমে এসএসসি ও এইচএসসি শিক্ষাক্রমের বিজ্ঞান বিভাগের সমমান হওয়ায় এ শিক্ষা ব্যবস্থার চাহিদা দিন দিন আরো বৃদ্ধি পাচ্ছে। এছাড়াও বর্তমান প্রতিষ্ঠানের ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং কোর্স দক্ষতার সাথে পরিচালনা করে যাচ্ছে। ২০০১ সাল থেকে অদ্যাবধি

More →

বাগেরহাট সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজের পক্ষ থেকে সবাইকে স্বাগতম

MMPI

Welcome

বাগেরহাট সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজ বাগেরহাট জেলা সদরের খান জাহান আলী রোডের দশানীর নূর মসজিদ মোড়ের কাছাকাছি অত্যন্ত মনোরম ও প্রাকৃতিক পরিবেশে অবস্থিত।  ১৯৬৫ খ্রিষ্টাব্দে ৩ দশমিক ৫০ একর জমির উপর প্রতিষ্ঠিত হয় বাগেরহাট সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজ। শুরুতে প্রতিষ্ঠানটি “ভোকেশনাল ট্রেনিং ইন্সটিউিট বা ভিটিআই ” নামে যাত্রা শুরু করে। পরবর্তী কালে ১৯৮৬ সালে জাতীয় দক্ষতা মানে উন্নীত হয়। বিশ্বায়নের চ্যালেঞ্জ মোকাবেলা এবং দেশের বেশির ভাগ মানুষকে কারিগরি শিক্ষায় শিক্ষিত ও দক্ষ জনবলে পরিণত করার জন্য সাধারণ ও কারিগরি শিক্ষার সমন্বয়ে ২০০১ সালে ২ বছর মেয়াদী এসএসসি (ভোকেশনাল) এবং ২০০৩ সালে এইচএসসি(ভোকেশনাল) শিক্ষা কার্যক্রম চালু করার মধ্য দিয়ে ততকালিন “ভোকেশনাল ট্রেনিং ইন্সটিউিট বা ভিটিআই ” , “বাগেরহাট সরকারি টেকনিক্যাল স্কুল ও কলেজ ” নামে পরিচিতি লাভ করে। 

More →
Top